প্রসব যন্ত্রণা নিয়ে ৩০ ঘণ্টা হাসপাতালের মেঝেতে HIV আক্রান্ত মহিলা !

প্রসব যন্ত্রণা নিয়ে ৩০ ঘণ্টা হাসপাতালের মেঝেতে HIV আক্রান্ত মহিলা !

ওই মহিলার স্বামীর অভিযোগ, “প্রসব যন্ত্রনা নিয়ে পড়ে থাকলেও কেউ একবারের জন্যও দেখতে আসেনি। এমনকী হাসপাতালের কর্মীরা ওকে ছুঁতেও চাইছিল না।”

ওই মহিলা পারাদ্বীপের বাসিন্দা। প্রায় দুবছর আগে তাঁর বিয়ে হয়। প্রথম সন্তান নষ্ট হয়ে যাওয়ার পর দ্বিতীয়বার গর্ভবতী হন তিনি। আর গত বছরই রক্ত পরীক্ষার পর তিনি HIV আক্রান্ত বলে জানা যায়।

মঙ্গলবার কটক থেকে তাঁকে কটকের SCB হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। হাাসপাতালে আসার পর OPD বিভাগ বন্ধ থাকায় প্রথমেই তাঁকে প্রসূতি বিভাগে নিয়ে যাওয়া হয়।

ওই মহিলার স্বামীর অভিযোগ, “HIV সংক্রমণের ব্যাপারে জানতে পেরে হাসপাতালের কোনও কর্মী ওকে দেখতেও আসেননি। প্রসব যন্ত্রণা নিয়েই ৩০ ঘণ্টা হাসপাতালের মেঝেতে শুয়ে থাকতে হয়। তবে ২৪ ঘণ্টা পর ওকে একটি স্থানীয় ডায়গনেসিস সেন্টারে পাঠানো হয়। সেখানে রক্ত পরীক্ষা হলেও হাসপাতালের কেউ তার রক্ত পরীক্ষা করে দেখেননি। বারবার চিকিৎসার জন্য ডাক্তারকে অনুরোধ করলেও আমাদের কথা শোনা হয়নি। এমনকী পরে খারাপ ব্যবহার করে হাসপাতাল থেকে আমাদের বের করে দেওয়া হয়।”

পরে উৎকল সমাজ নামে একটি NGO-র সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তাদের সাহায্যে SCB হাসপাতালে আবার ওই মহিলাকে ভর্তি করা হয়। বেডও পান তিনি।

পরে হাাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায়, “ওই মহিলাকে বেড সহ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তাঁর স্বাভাবিক প্রসবের চেষ্টাই করা হবে।”

Comments

comments